logo-img

১৯, আগস্ট, ২০১৯, সোমবার | | ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০


নিজের তৈরি মসজিদে দিনে ৮০০ জনকে ইফতারি করান খ্রিস্টান ব্যবসায়ী

রিপোর্টার: অনলাইন ডেস্ক | ১০ মে ২০১৯, ০৩:৩৫ পিএম


নিজের তৈরি মসজিদে দিনে ৮০০ জনকে ইফতারি করান খ্রিস্টান ব্যবসায়ী

মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতে মুসলিমদের জন্য একটি মসজিদ তৈরি করেছেন ভারতীয় এক খ্রিস্টান ব্যবসায়ী। শুধু তাই নয়, এই মসজিদের চলতি রমজান মাসের প্রত্যেকদিন প্রায় ৮০০ রোজাদারের ইফতারির ব্যবস্থা করেন তিনি।

৪৯ বছর বয়সী সাজি চেরিয়ান নামের ওই ব্যবসায়ী ভারতের কেরালার কায়ামকুলামের বাসিন্দা। গত বছর মুসলিম শ্রমিকদের জন্য ফুজাইরাহ শহরে একটি মসজিদ নির্মাণ করেন তিনি।

শ্রমিকরা তাদের কষ্টার্জিত অর্থ খরচ করে ট্যাক্সিতে করে নিকটবর্তী মসজিদে গিয়ে নামাজ আদায় করতেন। এটি দেখে যাতে দূরে গিয়ে শ্রমিকদের নামাজ আদায় করতে না হয়, সেজন্য তিনি মসজিদ তৈরির পরিকল্পনা করেন। পরিকল্পনা অনুযায়ী, ফুজাইরাহ শহরে মরিয়ম উম ঈশা (আ.) নামে একটি মসজিদ তৈরি করেন তিনি।

গত ৭ মে থেকে পবিত্র রমজান শুরু হয়েছে। মাত্র কয়েকশ দিরহাম নিয়ে ২০০৩ সালে আরব আমিরাতে পাড়ি জমান চেরিয়ান। গালফ নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বর্তমানে এই ব্যবসায়ী তার ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের ৮ শতাধিক কর্মী ও জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার ইফতার আয়োজন করেন। মসজিদের শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত কক্ষে প্রত্যেকদিন তিনি মুসলিমদের ফ্রি ইফতারি করান। 

তিনি বলেন, গত বছরের ১৭ রমজানে মসজিদটি মুসল্লিদের জন্য খুলে দেয়া হয়। আমি অবশিষ্ট রোজাগুলোতে মুসলিমদের ইফতারি সরবরাহ করতে সক্ষম হয়েছিলাম। তবে চলতি বছর থেকে আমি প্রত্যেকদিন ইফতারি সরবরাহ করছি।

ইফতারির খাবার তালিকায় থাকে, খেজুর, বিশুদ্ধ ফলমূল, স্ন্যাকস, জুস, পানি ও বিরিয়ানি। আমি বিভিন্ন ধরনের বিড়িয়ানি তৈরি করি; কারণ যাতে তারা প্রত্যেকদিন একই ধরনের খাবার খেয়ে বিরক্ত না হন।

৬৩ বছর বয়সী পাকিস্তানি প্রবাসী বাসচালক আব্দুল কাইয়ুম বুধবার চেরিয়ানের সেই মসজিদে ইফতারি করেছেন। তিনি ভারতীয় এই খ্রিস্টান ব্যবসায়ীর উদ্যোগের প্রশংসা করেন। তিনি বলেন, বিশ্বে তার মতো মানুষের দরকার। যদি তার মতো কোনো মানুষ না থাকে, তাহলে বিশ্ব ধ্বংস হয়ে যাবে। আমরা তার জন্য প্রার্থনা করেছি। আল্লাহ তাকে আশীর্বাদ করবেন।